অন্যান্য

দলছুট ২টি বন্য হাতির হামলায় ৬ বসত ঘর সহ ব্যাপক ক্ষতিসাধন

লামায় বন্য হাতির হামলায় ৬ বসত ঘর ভাংচুর করেছে । এ সময় ক্ষেতের ফসল , ফলদ ও বনজ বাগানের ব্যাপক ক্ষতিসাধন করে। বন্য হাতির ব্যাপরোয়া চলাচলে আতংকিত এলাকার লোকজন। গত বুধবার

ও বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার লামা সদর ইউনিয়নের পােয়াং পাড়া ও লারিঙ্গাঝিরি এলাকায় বন্য হাতি এ হামলা চালায়। বর্তমানে বন্য হাতি গুলো স্থান পরিবর্তন করে ইউনিয়নের চিউনী নক্সার ঝিড়ি ও ৬ নং ওয়ার্ডে অবস্থান করছে।

লামা সদর ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মানিক বড়ুয়া জানান, দু’টি বন্য হাতি লামা সদর ইউনিয়নের লারিঙ্গাঝিরি ও পােয়াং পাড়া এলাকায় গত দু’রাতে হামলা চালিয়ে স্থানীয়দের বসত ঘর ভাংচুর করছে । তিনি বলেন হাতিগুলাে

দিনের আলােতে পার্শ্ববর্তী পাহাড়ী ঝঙ্গলে থাকে। রাতের আঁধার নামলেই লােকালয়ে নেমে আসে । গত দু’রাতের অব্যাহত হামলায় ৬ জনের বসত ঘর ভাংচুর করে ক্ষতিগ্রস্থরা হলেন- মােঃ খােকন , মিনু বড়ুয়া , গবিন্দ গরামি , মনােরঞ্জন , টকি বড়ুয়া এবং

সুব্রত বড়ুয়া। এ সময় বন্য হাতি ক্ষেতের ফসল ও কলা বাগানসহ বিভিন্ন ফলদ-বনজ বাগানের ব্যাপক ক্ষতিসাধন করেছে লামা সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মিন্টু কুমার সেন বন্য হাতির হামলার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সম্ভবত এ বন্য হাতি দু’টি দলছুট

হওয়ার কারনে খাদ্যাভাব দেখা দেওয়ায় খাদ্যের সন্ধানে লোকলয়ে অবস্থান নিয়ে এ সব হামলা চালচ্ছে। তিনি এ সময় আরো বলেন, বর্তমানে বন্য হাতিগুলাে এলাকার পাহাড়ী ঝঙ্গলে অবস্থান

করায় স্থানীয়দের মাঝে আতংক বিরাজ করছে শনিবার স্থানীয় এলাকাসীর তথ্য মতে বন্যহাতি গুলো স্থান পরিবর্তন করে বর্তমানে ইউনিয়নের চিউনী নক্সার ঝিড়ি ও ৬ নং ওয়ার্ডে অবস্থান করছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close