সারা বাংলাদেশ

মেঘনায় ডুবে যাওয়া ট্রলার থেকে ১৬ জেলেকে জীবিত উদ্ধার

ভোলার চরফ্যাসনে ঝড়ের কবলে পড়ে মেঘনায় ডুবে যাওয়া ট্রলারের ১৬ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড
গত শনিবার (২৪ জুলাই) বিকালে মনপুরার চরপিয়াল সংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে তাদের উদ্ধার করা হয়।

ডুবে যাওয়া ট্রলারটি চরফ্যাসন উপজেলার সামরাজ মৎস্যঘাটের আবু সাইদ গাজীর।
উদ্ধারকৃত জেলেরা হলেন ট্রলার মালিক আবু সাইদ গাজি (৪৫), মাঝি আরজু (৫০), জেলে আরিফ (২৮), সাগর (২৫), সিরাজ (৪০), আবুল বারী (৫০), আখতার বকশি (৩০),

শরিফ (২৫), সোহেল (৫০), গফুর (৩০), জাকির (২৫), আলতাফ (২৫), আলাউদ্দিন (৩০), আল আমিন (৩০), সুফিয়ান (২০) ও নাসির (২৫)। এরা সবাই চরফ্যাসন উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের বাসিন্দা। স্থানীয় জেলেরা জানান, মনপুরা উপজেলার চরপিয়াল সংলগ্ন মেঘনা নদীতে আবু সাইদ গাজীর ট্রলার ডুবে গেলে চার ঘন্টা পর দুর্ঘটনাকবলিত ট্রলারসহ সকল জেলেকে জীবিত উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড। জানা গেছে,

চরফ্যাসন উপজেলার আবু সাইদ গাজীর ট্রলার চরপিয়াল সংলগ্ন মেঘনায় দূর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার মধ্যে মাছ শিকার করার সময় হঠাৎ ঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারটি মেঘনা নদীতে ডুবে যায়। খবর পেয়ে ভোলা দক্ষিণ চরমানিকা ও মনপুরার কোস্টগার্ডের দুটি দল স্থানীয় জেলেদের সহায়তায় ডুবে যাওয়া ট্রলারসহ ১৬ জেলেকে

জীবিত উদ্ধার করে। ওই ট্রলারের মালিক আবু সাঈদ চরফ্যাসন সামরাজ মৎস্যঘাটের হাজি জয়নালের মৎস্য আড়তে মাছ বিক্রি করেন। চর মানিকা কোস্টগার্ড কন্টিনজেন্ট কমান্ডার এম জমির হোসেন (সিপিও) বলেন, ঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারটি ডুবে যায়। তবে, কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। খবর পেয়ে চরফ্যাসন ও মনপুরার কোস্টগার্ডের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থল থেকে ১৬ জন

জেলেকে জীবিত উদ্ধার করে তাদের স্বজনদের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। চরফ্যাসনের স্থানীয় জেলেরা সন্ধ্যায় ভাটার সময় ওই ট্রলারটি উদ্ধার করে নিয়ে এসেছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close