আন্তর্জাতিক

তালেবানের দখলকৃত বন্দরে দৈনিক ক্ষতি ৩২ হাজার ডলার

একের পর এক এলাকা নিজেদের দখলে নিচ্ছে তালেবান গোষ্ঠী। তবে এতে করে বড় ধরনের ক্ষতির মুখে পড়ছে আফগান অর্থনীতি। সম্প্রতি কুন্দুজ প্রদেশের শের খান বন্দর তালেবানদের দখলে যাবার পর থেকে

ওই বন্দরের সমস্ত কার্যক্রম বন্ধ হয়ে আছে। এর ফলে বড় ধরণের আর্থিক ক্ষতির মুখে আছে দেশটির সরকার। এক হিসেব অনুযায়ী, দৈনিক ২.৫ মিলিয়ন আফগানি (৩২ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি) রাজস্ব হারাচ্ছে কর্তৃপক্ষ

আফগানিস্তানের গণমাধ্যম টোলো নিউজ এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছে। জানা যায়, শের খান বন্দর দখল নেয়ার পর থেকেই এরপর থেকে সেখানে কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। ফলে প্রতিদিন ৩২ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার। দ্য আফগান চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট জানিয়েছে,

তালেবান শের খান বন্দর পোর্ট এবং কাস্টমস অফিস দখলের পর থেকে কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। বিদেশী পণ্যবাহী কোন কিছুই নিরাপত্তা শঙ্কায় সেখানে আসছে না। এমনকি বন্দরে কোন প্রকার কাজও করতে দিচ্ছেনা অস্ত্রধারী তালেবানরা। তাজিকিস্তান সীমান্তে অবস্থিত এই বন্দর এখন প্রায় জনশুন্য। চেম্বারের

কর্মকর্তারা বলছেন, বন্দরের কার্যক্রম বন্ধ হয়ে যাওয়ার কারণে উত্তরাঞ্চলের প্রদেশসমূহ বিশেষ করে কুন্দুজ প্রদেশের ব্যবসায়ীরা ব্যাপক আকারের ক্ষতির মুখে রয়েছেন। চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্টের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) শফিকুল্লাহ আতাই বলেন, বন্দরে কোনো কার্যক্রম চলছে না। এই এলকায় সংঘর্ষ

চলছেই। ব্যবসায়ীরা বন্দরে যাওয়ার ঝুঁকি নিতে রাজি নয়।
উল্লেখ্য, তালেবানের হাতে যাবার আগে শের খান বন্দরে প্রতিদিন ২শর বেশি যানবাহন কাস্টমস ক্লিয়ারেন্সের জন্য আসতো। কিন্তু বর্তমানে এ কার্যকম সম্পূর্ণ বন্ধ রয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close