লকডাউন বাংলাদেশ

গণপরিবহন বন্ধ, রাজধানীতে চলছে মাইক্রোবাস, প্রাইভেট কার, সিএনজি ও রিক্সা

ভোর ৬টা থেকে সারা দেশে শুরু হয়েছে লকডাউন। ৭টার দিকে ডেমরা স্টাফ কোয়ার্টার এলাকায় দেখা যায়, কর্মস্থলে যাওয়ার জন্য অনেকেই অপেক্ষা করছে। সিএনজি ও প্রাইভেট কার দেখলেই হাত তুলছে। দরদাম

করেই উঠে পড়ছে। এছাড়াও রাস্তায় দেখা যায় প্রচুর পণ্যবাহী যানবহন। বেসরকারি একটি অফিসের কর্মকর্তা আব্দুল হালিম বলেন, আমি প্রতিদিন ৮টার কিছু সময় আগে বের হই। আমার অফিস ৯টা থেকে। আজকে ৭টারও অনেক আগে বাসা থেকে

বের হয়েছি। অফিস এখনো বন্ধ ঘোষণা করেনি। গণপরিবহণ বন্ধ। আজ থেকে যে কয়দিন অফিস খোলা থাকবে ততদিন ভোগান্তিও বেশি হবে। টাকাও বেশি খরচ হবে।
৭.২০ এর দিকে রামপুরা টিভি সেন্টার ও হাতিরঝিলে পুলিশের

কোনো চেকপোস্ট দেখা যায়নি। প্রতিদিনের মত রামপুরা থেকে কারওয়ান বাজার পর্যন্ত সিএনজি চলছে। প্রতিজন থেকে নেওয়া হচ্ছে ৩০ টাকা। ৭ জুন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের জারি করা এক প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, সকল শপিং মল, মার্কেট, পর্যটন কেন্দ্র , রিসোর্ট, বিনোদন কেন্দ্র ও কমিউনিটি সেন্টার বন্ধ থাকবে।

হোটেল, রেস্তরাঁয় বসে খাবার খাওয়া যাবে না। সকাল ৮টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খাবার বিক্রি করতে পারবে। সরকারি-বেসরকারি অফিস/প্রতিষ্ঠান শুধুমাত্র প্রয়োজনীয় সংখ্যক কর্মকর্তা-কর্মচারীর উপস্থিতি নিশ্চিত করতে নিজ নিজ অফিসের ব্যবস্থাপনায় তাদের আনা-নেয়া করতে হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close