জাতীয়

‘জাতীয় প্রয়োজনে এগিয়ে আসবে সেনাবাহিনী’

দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষা ছাড়াও বিভিন্ন ক্ষেত্রে সেনাবাহিনীর ভূমিকার কথা তুলে ধরেছেন বাহিনীটির প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ। আজ মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) যশোর সেনানিবাসে চারটি ইউনিটের রেজিমেন্টাল কালার প্রদান অনুষ্ঠানে

কথা বলেন তিনি। এ সময় সেনাপ্রধান বলেন, বিভিন্ন প্রাকৃতিক ও মানবসৃষ্ট দুর্যোগ, আর্থসামাজিক ও অবকাঠামোগত উন্নয়নে অবদান রাখছে সেনাবাহিনী। আগামীতেও দেশের অখণ্ডতা রক্ষার পাশাপাশি জাতীয় প্রয়োজনে সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকতে হবে।

দেশের যেকোনো প্রয়োজনে সবাইকে সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এগিয়ে আসতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় সেনাবাহিনী বিশ্বে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন- আমরা আজ আধুনিক, যুগোপযোগী ও চৌকস বাহিনী।

যুগান্তকারী উদ্যোগের জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি শ্রদ্ধা ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। সেনাবাহিনীর যেকোনো ইউনিটের জন্য রেজিমেন্টাল কালার পাওয়া ‘বিরল সম্মান ও পবিত্র আমানত’ বলে মন্তব্য করেন জেনারেল আজিজ আহমেদ। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর

জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পালনের সময় এটি আরো গৌরব ও আনন্দের। কর্মদক্ষতা, কঠোর পরিশ্রম ও কর্তব্যনিষ্ঠার স্বীকৃতির এই পতাকার মর্যাদা রক্ষার আহ্বান জানিয়ে সেনাপ্রধান বলেন, দেশের প্রয়োজনে সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকতে হবে। অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনীর রেজিমেন্টাল পতাকা গ্রহণ

করে ১৬ ও ১৭ ইঞ্জিনিয়ার কনস্ট্রাকশন ব্যাটালিয়ন এবং ১০ ও ১১ সিগন্যাল ব্যাটালিয়ন। স্বাধীনতা যুদ্ধে বীরত্বপূর্ণ ভূমিকা, পার্বত্য চট্টগ্রামে শান্তি প্রতিষ্ঠায় অবদান, দেশ-জাতি গঠনে অবদান এবং বিবিধ প্রশিক্ষণসহ অপারেশনে সাফল্যের জন্য এই সম্মাননা দেয়া হয়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close